উত্তরবঙ্গে  যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

যাচ্ছেন

উত্তরবঙ্গে  যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। একটানা  লাগাতার বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত উত্তরবঙ্গ। ধস নেমে বহু এলাকা যোগাযোগ বিচ্ছিন। ভেঙেছে রাস্তা, ঘরবাড়ি। বহু পর্যটক আটক। নদীর পাড় ভেঙে তলিয়ে গিয়েছে বিস্তীর্ণ এলাকা, ঘরবাড়ি। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে এবার  উত্তরবঙ্গে  যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 

জানা গিয়েছে, আগামী ২৪ অক্টোবর উত্তরবঙ্গে  রওনা দিচ্ছেন। ফিরবেন ২৮ তারিখ। ২৪ অক্টোবর শিলিগুড়ি পৌঁছচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী। উত্তরকন্যায় থাকবেন। ২৪ এবং ২৫ অক্টোবর শিলিগুড়িতে প্রশাসনিক বৈঠক করবেন। এরপর ২৬ এবং ২৭ অক্টোবর কার্শিয়াং যাবেন তিনি। তবে এই সফরে দার্জিলিং যাচ্ছেন না। ২৮ অক্টোবর কলকাতায় ফিরবেন মুখ্যমন্ত্রী।

 

আর ও পড়ুন    হিমাচলে হু হু করে বাড়ছে মৃতের সংখ্যা, কিন্নরে ট্রেক করতে গিয়ে নিখোঁজ ১৭ জন

 

টানা বৃষ্টির জেরে    উত্তরবঙ্গে বহু এলাকায় তিস্তার পাড় ভেঙেছে। জয়গাঁতে তোর্সার পাড় ভেঙে তলিয়ে গিয়েছেন দুই শিশুকন্যা। নদীর সংরক্ষিত এলাকাতেও লাল সতর্কতা জারি করেছে প্রশাসন। জলপাইগুড়ি শহর সংলগ্ন তিস্তার বিবেকানন্দ ও সারদা পল্লি এলাকা জলমগ্ন। তিস্তার পাড়ে দক্ষিণ সুকান্তনগর গ্রামেও জল ঢুকে পড়েছে। নিজের বাড়ি ছেড়ে বাঁধে এসে আশ্রয় নিয়েছেন বাসিন্দারা। এদিকে দার্জিলিং, কালিম্পঙেও বহু জায়গায় ধস নেমেছে।

 

বৃহস্পতিবার সিকিম ও কালিম্পংয়ের সংযোগকারী শিলিগুড়ির রাস্তায় বিরিক এলাকায় ফের ধস নামে। যার ফলে বন্ধ বিরিক-‌দারা রোড। পাশাপাশি বন্ধ রয়েছে শিলিগুড়ি ও কার্শিয়াঙের মধ্যে ৫৫ নম্বর জাতীয় সড়ক। যদিও শিলিগুড়ি থেকে সিকিম যাওয়ার রাস্তার একটি অংশ খুলে দেওয়া হয়েছে। এই সংকটকালীন পরিস্থিতিতে এবার পাহাড়ে যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

 

উল্লেখ্য, উত্তরবঙ্গে  যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। একটানা  লাগাতার বৃষ্টিতে বিপর্যস্ত উত্তরবঙ্গ। ধস নেমে বহু এলাকা যোগাযোগ বিচ্ছিন। ভেঙেছে রাস্তা, ঘরবাড়ি। বহু পর্যটক আটক। নদীর পাড় ভেঙে তলিয়ে গিয়েছে বিস্তীর্ণ এলাকা, ঘরবাড়ি। পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে এবার  উত্তরবঙ্গে  যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। জানা গিয়েছে, আগামী ২৪ অক্টোবর উত্তরবঙ্গে  রওনা দিচ্ছেন। ফিরবেন ২৮ তারিখ।

 

২৪ অক্টোবর শিলিগুড়ি পৌঁছচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী। উত্তরকন্যায় থাকবেন। ২৪ এবং ২৫ অক্টোবর শিলিগুড়িতে প্রশাসনিক বৈঠক করবেন। এরপর ২৬ এবং ২৭ অক্টোবর কার্শিয়াং যাবেন তিনি। তবে এই সফরে দার্জিলিং যাচ্ছেন না। ২৮ অক্টোবর কলকাতায় ফিরবেন মুখ্যমন্ত্রী। টানা বৃষ্টির জেরে    উত্তরবঙ্গে বহু এলাকায় তিস্তার পাড় ভেঙেছে। জয়গাঁতে তোর্সার পাড় ভেঙে তলিয়ে গিয়েছেন দুই শিশুকন্যা। নদীর সংরক্ষিত এলাকাতেও লাল সতর্কতা জারি করেছে প্রশাসন। জলপাইগুড়ি শহর সংলগ্ন তিস্তার বিবেকানন্দ ও সারদা পল্লি এলাকা জলমগ্ন। তিস্তার পাড়ে দক্ষিণ সুকান্তনগর গ্রামেও জল ঢুকে পড়েছে। নিজের বাড়ি ছেড়ে বাঁধে এসে আশ্রয় নিয়েছেন বাসিন্দারা। এদিকে দার্জিলিং, কালিম্পঙেও বহু জায়গায় ধস নেমেছে।