সরকারি নিষেধাজ্ঞা না মেনে জমায়েত, বাধা দেওয়ায় গুরুতর আহত হল প্রাক্তন সেনা কর্মী

0
45

নিজস্ব সংবাদদাতা, পূর্ব বর্ধমান, ২ এপ্রিল, করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ আটকাতে এক জায়গায় জমায়েত নিষেদ করেছে সরকার, সরকারি সেই নিষেধাজ্ঞাকে তোয়াক্কা না করে কীটনাশক স্প্রে দেখতে ভিড় করে জনসাধারণ।তা দেখে প্রতিবাদ করায় প্রাক্তন সেনা কর্মীকে ইঁট দিয়ে মাথা থেঁতলে দিল কয়েকজন অভিযুক্ত।আহত বাবাকে বাঁচাতে গেলে ছেলেকেও মারধর করা হয় বলে অভিযোগ।

ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার সকালে পূর্ব বর্ধমানের কালনার পাণ্ডুয়া মোড়ে।গুরুতর ও রক্তাক্ত অবস্থায় প্রাত্তন সেনা কর্মী খন্দেকার মোশারফ হুসেন ও তার ছেলেকে কালনা সুপার স্পেশালিটি হসপিটালে ভর্তি করা হয়।মূল অভিযুক্ত ঘটনার পরই ঘটনাস্থল থেকে সুযোগ বুঝে পালায়। জানা যায়, মশা ও কীট মারার জন্যে বাড়ি ও বাড়ির আশেপাশে কীটনাশক স্প্রে করছিলেন কালনার পাণ্ডুয়া মোড়ের বাসিন্দা খন্ডেকার মোশারফ হুসেন। প্রথমে বিষয়টা না জেনে স্প্রেতে বাধা দেয় সাধারণ মানুষ পরে ভীড় জমাতে শুরু করে পাড়া প্রতিবেশীরা। সরকারি নিয়ম মেনেই ভিড়ের প্রতিবাদ করে প্রাক্তন সেনা কর্মী। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে কালনা থানার পুলিশ।